খালেদা জিয়া আইএসআইয়ের সাথে বৈঠক করেছেন : জয়

0
9
Print Friendly, PDF & Email

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া গত কয়েক মাসে সিঙ্গাপুরে পাকিস্তানের সামরিক গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআইয়ের গুপ্তচরদের সাথে সাক্ষাৎ করেছেন বলে অভিযোগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে সজিব ওয়াজেদ জয়।

বুধবার রাত সোয়া ১১টার দিকে জয় তার অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে এক স্ট্যাটাসে এ কথা বলেন। বাংলা ও ইংরেজিতে লেখা এ স্ট্যাটাসে তিনি আরো বলেন, বিএনপি-জামায়াত বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে।

”বিএনপি-জামায়াতের এ সন্ত্রাস রুখে দাঁড়ানোর জন্যে” তিনি মুক্তিযুদ্ধের সকল শক্তির প্রতি আহ্বান জানান।

পাঠকদের জন্য জয়ের স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো-

”অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে বিএনপি ও জামায়াত উভয়ই বাংলাদেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা শমসের মুবিন চৌধুরী বিবিসিকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, বাংলাদেশে যুদ্ধাবস্থা বিরাজ করছে। বিএনপির সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকা তার কর্মীদের নির্দেশ দিচ্ছেন নিরীহ মানুষের ওপর আক্রমণের জন্য, এমন ফোন আলাপও পাওয়া যাচ্ছে।

গত সপ্তাহে জামায়াতের তাণ্ডব ছিলো তুঙ্গে। শাহবাগসহ সারা দেশ জুড়ে তারা বোমা হামলা চালিয়েছে। বিচারপতিদের বাড়ি থেকে শুরু করে, আওয়ামী লীগ নেতাদের বাড়িতে তারা অগ্নিসংযোগ করেছে, আমাদের বহু নেতা কর্মীকে তারা হত্যা ও নির্যাতন করেছে, সেইসাথে তারা পুলিশের উপর আক্রমণ চালিয়েছে।

আজ ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বাংলাদেশে পাচার করার সময় বিস্ফোরকসহ চোরাচালানীদের আটক করেছে। এই চোরাচালানীরা আগেও পাকিস্তান থেকে বাংলাদেশের সন্ত্রাসীদের সহায়তা করার জন্য বিদেশী মুদ্রা ও অন্যান্য রসদ নিয়ে এসেছে।

এ সবই সন্ত্রাসবাদ। ১৯৭১ সালেও জামায়াত ও স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি এ ধরনের কার্যকলাপ পরিচালনা করেছে। ৪২ বছর পর আজও তারা আবার এসব করছে, এখনও তারা পাকিস্তানের পক্ষে। গত কয়েক মাসে খালেদা জিয়া স্বয়ং সিঙ্গাপুরে আইএসআইয়ের গুপ্তচরদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন।

বিএনপি ঘোষণা দিয়েছে, আলোচনা যদিও চলবে, পাশাপাশি তারা তাদের আক্রমণ চালিয়েই যাবে। আমরা কি এসব সহ্য করব?
ডিসেম্বর আমাদের বিজয়ের মাস। আমরা কি এখনও এই যুদ্ধাপরাধীদের দল আর তাদের সাঙ্গোপাঙ্গোদের হামলায় আমাদের নিরীহ মানুষের মৃত্যু মেনে নেব, যেমন হত্যাকাণ্ড তারা ১৯৭১ এ ঘটিয়েছিলো? পুরো পাকিস্তান সেনাবাহিনীর সঙ্গে আমরা এদের পরাজিত করেছিলাম। এবার তারা আবারও পরাজিত হবে।

মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের সকল শক্তিকে আমি বিএনপি-জামায়াতের এ সন্ত্রাস রুখে দাঁড়ানোর জন্যে আমাদের সঙ্গে যোগদানের আহ্বান জানাই। এই রাজাকারদের চিরতরের জন্যে পরাজিত করতে হবে।

Facebook Comments