শ্রীপুরে বি.এন.পি. ও পুলিশের ব্যপক সংঘর্ষ ভাংচুর, আহত অর্ধশত, গ্রেফতার-১।

0
14
Print Friendly, PDF & Email

ষ্টাফ রিপোর্টার: ২১ ডিসেম্বর শনিবার বিকেলে শ্রীপুর উপজেলা ও পৌর বি.এন.পি’র উদ্যেগে বিক্ষোভ মিছিল বের করার প্রস্তুতিকালে পুলিশ হামলা চালায়। এসময় পুলিশ ও মিছিলকারীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় অর্ধশত নেতা-কর্মী আহত হয়।

জানা যায়, বিকেল ৪টার দিকে ১৮ দলীয় জোটের নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ মিছিলের প্রস্তুতিকালে পুলিশ মিছিলে হামলা করে মিছিলকারীদের ছত্র ভংগ করে যুবদল নেতা মহসিনকে গ্রেফতার করে। এতে পুলিশ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে প্রায় ২ ঘন্টাব্যাপী দফায় দফায় ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ৮/১০টি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড শর্ট গানের গুলি ও টিয়ার শেল নিক্ষেপ করে। পৌর বিএনপি’র সভাপতি এডভোকেট কাজী খান দাবী করেন, পুলিশের হামলায় নাসিম মোড়ল, আলামিন, মামুন সহ ১০/১৫ জন গুলিবিদ্ধ হয়। এছাড়াও সংঘর্ষে প্রায় অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী আহত হয়েছে। আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে ক্লিনিকে নেয়া হয়েছে। তাৎক্ষনিক ভাবে আহতদের নাম পরিচয় জানা যায়নি।

এদিকে বিক্ষোব্ধ নেতা-কর্মীরা মিছিল করতে ব্যর্থ হয়ে পৌর শহরের চারদিকে ছড়িয়ে শ্রীপুর-বরমী, রাজাবাড়ী, মাওনা, টেংরা, মাষ্টারবাড়ী সড়কে শতাধিক যানবাহন ভাংচুর করে। এতে সিএনজি চালক আকবর গুরুতর আহত হয়। এদিকে সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত পুলিশের সাথে স্থানে স্থানে বিএনপি নেতাকর্মীদের সাথে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলছে। শ্রীপুর ও আশপাশের এলাকা থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে, জনশূণ্য হয়ে পড়েছে শ্রীপুর বাজার।

Facebook Comments
শেয়ার করুন