গোপীবাগে বাবা-ছেলেসহ ছয়জনকে গলা কেটে হত্যা

0
5
Print Friendly, PDF & Email

রাজধানীর গোপীবাগের একটি বাসায় ছয়জনকে গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে দুজন সম্পর্কে বাবা ও ছেলে। তাঁরা হলেন লুত্ফর রহমান (৬০) ও তাঁর ছেলে মনির হোসেন (৩০)।

নিহত বাকি চারজন হলেন মঞ্জু, মজিবুর রহমান, রাসেল ও শাহিন। তাঁদের বয়স ৩০ থেকে ৩৫ বছরের মধ্যে।

পুলিশ জানিয়েছে, গোপীবাগের আর কে মিশন রোডের চারতলা ভবনের দোতলায় সন্ধ্যা সোয়া ছয়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। বাসা ভেতরে চিত্কার শুনে আশপাশের লোকজন পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ছয়জনের লাশ উদ্ধার করে। বাসার একটি কক্ষে ছিল চারটি লাশ ও আরেকটি কক্ষে ছিল দুটি লাশ। এ ছাড়া বাসার আরেকটি কক্ষ থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় চারজনকে জীবিত উদ্ধার করেছে পুলিশ।

পুলিশের ওয়ারী বিভাগের উপকমিশনার মেহেদী হাসান সাংবাদিকদের বলেন, নিহত লুত্ফর রহমান তিন মাস আগে ওই বাসা ভাড়া নেন। তখন থেকে তিনি ওই বাসায় থাকেন। তিনি আধ্যাত্মিক সাধনা করতেন। এ জন্য তাঁর ভক্ত বা মুরিদরা ওই বাসায় যেতেন। ওই বাসা থেকে যাঁদের জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে তাঁরা পুলিশকে বলেছেন, সন্ধ্যা ছয়টার দিকে আট থেকে ১০ ব্যক্তি ওই বাসায় ঢুকে তাঁদের হাত-পা বেঁধে ফেলে। তারপর ওই ছয়জনকে হত্যা করা হয়।

Facebook Comments