খালেদাকে গ্রেফতারের পরিণতি সরকারের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া

15

ডেস্ক রিপোর্ট: ভোটারবিহীন বর্তমান অবৈধ সরকার মনে করছে খালেদা জিয়াকে গ্রেফতার করলেই বোধহয় দেশব্যাপী ২০ দলের আন্দোলনে ভাটা পড়বে। কিন্তু তারা ভুলে গেছে, কথিত বন্দুকযুদ্ধ ও ক্রসফায়ারের পরও আন্দোলনকারীরা যখন হরতাল-অবরোধে অগ্রগামী তখন খালেদা জিয়াকে গ্রেফতারের পরিণতি হবে বর্তমান সরকারের রাজনৈতিক অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া বলে মন্তব্য বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভীর।

শুক্রবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুরে সংবাদ মাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, মহান জাতীয় সংসদকে আওয়ামী লীগের দ্বিতীয় কার্যালয় কিংবা আওয়ামী মহাজোট সরকারের ক্লাব ঘরে পরিণত করা হয়েছে। আর সেখানে বিএনপি চেয়ারপারসনকে গ্রেফতার ও বিচার করার জন্য সংসদ সদস্যরা চিৎকার জুড়ে দিয়েছেন। তিনি আরও বলেন, সেখানে (সংসদে) এখন গানবাজনা থেকে শুরু করে জিয়া পরিবারের বিরুদ্ধে গালিগালাজ, দমানোর হুমকি-ধামকির প্রতিযোগিতা চলছে।

রুহুল কবীর রিজভী বলেন, বর্তমান অবৈধ সরকারের প্রধান থেকে শুরু করে অন্যান্য সদস্যবৃন্দ ও শাসকদলের উচ্চ পর্যায়ের নেতৃবৃন্দের বক্তব্য-বিবৃতি শুনলে মনে হয়- কে কত নিম্নরুচির ভাষা প্রয়োগ করতে পারে সেটারই প্রতিযোগিতা করছে তারা। তিনি বলেন, সংসদে প্রধানমন্ত্রীর ভাই শেখ সেলিম বলেছেন- বিএনপি চেয়ারপারসনকে নাকি প্রকাশ্যে রাস্তায় ধরে এনে বিচার করা হবে। শেখ সেলিমের এ ধরনের বক্তব্য কেবল শেখ হাসিনাকে খুশি করার জন্যই। কারণ এই শেখ সেলিমই একদিন শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ তুলেছিলেন। নিজের অপরাধ ঢাকার জন্যই বোনকে খুশি করতে এখন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গলা ফাটিয়ে গালিগালাজ করছেন তিনি।

খালেদা জিয়ার বিপুল জনপ্রিয়তা ও বিএনপির অস্তিত্ব প্রধানমন্ত্রীর একমাত্র জ্বালা উল্লেখ করে রিজভী বলেন, সেটি বুঝতে পেরেই শেখ সেলিম দিনরাত খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে অশ্রাব্য চিৎকার করে যাচ্ছেন।

Facebook Comments